হেডলাইন
◈ একদিনে হাসপাতালে রেকর্ড ৪৩৮ ডেঙ্গু রোগী! ◈ আমার গ্রাম-আমার শহর’ বাস্তবায়নে ২৪৫ প্রকল্প ◈ সীমান্তের ঘটনায় আরাকান আর্মি-আরসার ওপর দায় চাপালো মিয়ানমার! ◈ ভারতে ইলিশ রপ্তানি বন্ধে স্থায়ী নির্দেশনা চেয়ে রিট! ◈ সাংবাদিক শাকিল হাসানকে হত্যাচেষ্টার মামলায় রায় ১৮ অক্টোবর! ◈ যুবলীগের সম্পাদক নিখিলসহ ৫০০ জনের বিরুদ্ধে বিএনপির মামলার আবেদন! ◈ শহীদ আফ্রিদির সংস্থায় সেই ব্যাট দিলেন নাসিম শাহ ◈ হঠাৎ মোদি ও এরদোগানের বৈঠক ◈ সাগরে আবারও লঘুচাপ সৃষ্টির আভাস, বাড়তে পারে বৃষ্টি ◈ নতুন রুপে আবার অভিনয়ে নিয়মিত রত্না ◈ ওমরাহ পালনে সৌদি গেলেন টাইগার অলরাউন্ডার ◈ জাতীয় পার্টি কোনো জোটে নেই: জিএম কাদের ◈ রানির শোভাযাত্রায় ডায়ানার যে স্মৃতি মনে দাগ কেটেছে প্রিন্স উইলিয়ামের ◈ মৃত্যুর পরে কি হয় তাদের লাশ || ◈ শান্তর ভূয়সী প্রশংসায় যা বললেন শ্রীরাম ◈ রাশিয়ার বিরুদ্ধে যে অঙ্গীকার করলেন জেলেনস্কি ◈ বিএনপি নেতা শাহ মোয়াজ্জেম আর নেই ◈ ফের নাম্বার ওয়ান অলরাউন্ডার সাকিব ◈ রাশিয়া প্রথমবারের মতো ইরানের ড্রোন ব্যবহার করেছে ◈ ভারত সফরে বাংলাদেশ কী পেল, যা বললেন প্রধানমন্ত্রী
হোম / আইন-আদালত / বিস্তারিত

For Advertisement

হত্যা চেষ্টা মামলায় সিকদার গ্রুপের ২ ভাইকে অব্যাহতি দিতে পুলিশের ফাইনাল রিপোর্ট দাখিল!

১১ আগস্ট ২০২১, ৩:২৩:৪৮

জানা যায়, গুলশান থানার মামলায় তদন্ত কর্মকর্তা পুলিশের উপ-পরিদর্শক মো. রিপন উদ্দিন গত ২৭ জুলাই এই দুই আসামিকে অব্যাহতি চেয়ে একটি চূড়ান্ত প্রতিবেদন আদালতে দাখিল করেন। তিনি প্রতিবেদনে উল্লেখ করেন, ‘কিছু তথ্যগত ভুল বা ভুল বোঝাবুঝির ভিত্তিতে মামলাটি দায়ের করেন বাদী। তাদের (বাদী-বিবাদী) মধ্যে একটি আপসনামা হয়েছে।’

এর আগে ১২ ফেব্রুয়ারি ঢাকা ম্যাট্রেপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আশেক ইমামের আদালত রন হক সিকদারের বাবা মারা যাওয়ায় বিশেষ বিবেচনায় ১০ মার্চ পর্যন্ত রন হকের জামিন মঞ্জুর করেন। ওই দিনই সকাল ১০টার দিকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে তাকে গ্রেফতার করে ডিবির গুলশান বিভাগের একটি দল।

এক্সিম ব্যাংকের দুই কর্মকর্তাকে নির্যাতন ও গুলি করে হত্যাচেষ্টার অভিযোগে সিকদার গ্রুপ অব কোম্পানিজের এমডি রন হক সিকদার ও তার ভাই দিপু হক সিকদারের বিরুদ্ধে রাজধানীর গুলশান থানায় গত বছর মামলা করে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ।

মামলার এজাহারে বলা হয়, গত ৭ মে রন ও দিপু মিলে এক্সিম ব্যাংকের এমডি মুহাম্মদ হায়দার আলী মিয়া ও অতিরিক্ত এমডি মুহাম্মদ ফিরোজ হোসেনকে একটি অ্যাপার্টমেন্টে বন্দি করে রাখেন। এমনকি তাদের গুলি করে হত্যা করার চেষ্টা করা হয়।

মামলায় ব্যাংক কর্তৃপক্ষ আরও উল্লেখ করে, নির্যাতনের একপর্যায়ে সাদা কাগজে সই নিয়ে তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়। সিকদার গ্রুপ ব্যাংকটির কাছে ৫০০ কোটি টাকা ঋণ প্রস্তাব দিলে এর বিপরীতে গ্রুপের বন্ধকি সম্পত্তি পরিদর্শনে যান ব্যাংকের দুই কর্মকর্তা। সে সময় এ ঘটনা ঘটে। এতে আরও বলা হয়েছে, গ্রুপের এমডির দাবির তুলনায় বন্ধকি সম্পত্তির মূল্য কম ছিল।

এ বিষয়ে এক্সিম ব্যাংকের পক্ষে এই মামলার বাদী লেফটেন্যান্ট কর্নেল সিরাজুল ইসলাম বিপি (বার) এর সত্যতা সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি জানান, বিবদমান বিষয়টি নিয়ে ইতিমধ্যে উভয়পক্ষের মধ্যে একটি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়েছে। ফলে উক্ত সমঝোতা চুক্তি পত্রের আলোকে সংশ্লিষ্ট তদন্ত কর্মকর্তার মামলার ফাইনাল রিপোর্ট প্রদানে আইনগত বাধা নেই।

For Advertisement

পূর্বাকাশ ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Comments: